May 23, 2024, 10:09 pm

সাংবাদিক আবশ্যক
সাতক্ষীরা প্রবাহে সংবাদ পাঠানোর ইমেইল: arahmansat@gmail.com
শিরোনাম:
কেঁদেছিল বাংলাদেশ, কাঁদছে ভারত………

কেঁদেছিল বাংলাদেশ, কাঁদছে ভারত………

২০১৬ সালের ২৩শে মার্চ। টি টুয়েন্টি বিশ্বকাপে ভারতের মুখোমুখি বাংলাদেশ। বাংলাদেশের জয় তখন সময়ের ব্যাপার। দরকার ৩ বলে ২ রান।পরপর দুই বলে আউট মুশফিক-মাহামুদউল্লাহ। শেষ বলে এক অনাকাঙ্ক্ষিত রান আউট! ভারতের কাছে হেরে বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে গেল টাইগাররা।সেই রান আউটে ভারত টিকে থাকলো টুর্নামেন্টে। আনন্দের সেই রান আউট। সেই রান আউটের তিন বছর কেটে গেছে। গতকাল ভারত বাদ পড়লো সেরকমই এক রান আউটে। রান আউটটা এবার কান্নার কারণ ভারতের।মার্টিন গাপটিল। শেষ দুই বিশ্বকাপে দেখেছেন মুদ্রার দুই পিঠ। ২০১৫ বিশ্বকাপে যেখানে একাই টেনে তুলেছিলেন নিউজিল্যান্ডকে ফাইনালে, ২০১৯ বিশ্বকাপে সেখানে ধুঁকছে ব্যাট হাতে। তবে সবকিছু ছাপিয়ে এবারও দলকে ফাইনালে তুলতে পালন করলেন অন্যতম ভূমিকা। এবার ব্যাট হাতে নয়, বল হাতে! রান আউটে নিউজিল্যান্ডকে তুললেন ফাইনালে।গাপটিলের এক থ্রোতে ঘুরে গেছে ম্যাচের চাকা। যদিও নিউজিল্যান্ডের আজকের ম্যাচের বড় হুমকি ছিল জাদেজা, তবুও ইতিহাস বলে ধোনি ক্রিজে থাকা মানে ম্যাচের পাল্লা ভারতের পক্ষে ঝুঁকে থাকা। সেই ধোনিই যখন ভারতকে নিয়ে যাচ্ছিল জয়ের দিকে, গাপটিল ফেরালেন তাঁকে অবিশ্বাস্য এক থ্রোতে। সেখানেই মূলত ম্যাচ চলে যায় কিউইদের হাতে। তাইতো ম্যাচ শেষে টেইলর-উইলিয়ামসন বা হেনরিকে বাদ দিয়ে সবাই পড়ে আছে গাপটিলের সেই থ্রোতে!ধোনি আউট না হলে হয়তো এতক্ষণে ফাইনালে থাকতো ভারত। তবে গাপটিলের সেই রান আউটে ধোনির শেষ বিশ্বকাপ ম্যাচটা হয়ে থাকলো এক দুঃস্বপ্নের ম্যাচ। এক ভুলে যাওয়ার ম্যাচ। অন্যতম ফেভারিট ভারতকে বিদায় নিতে হচ্ছে সেমি থেকেই।


Comments are closed.

ইমেইল: arahmansat@gmail.com
Design & Developed BY CodesHost Limited
Raytahost Facebook Sharing Powered By : Raytahost.com